রকি একজন শিহ্মক যে তিথির বাসায় টিউশনি করায় এবং তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক তৈরি হয়

আমার দেখা এবছরের সেরা নাটক “চিরকাল আজ” নিঃসন্দেহে এটি দেখার সময় হালকা ভাবে কোরিয়ান মুভি A moment to Remember এর ফিল অনুভব করছিলাম, বাংলাদেশি নাটক হিসেবে সত্যিই অসাধারন একটা নাটক চিরকাল আজ। এ নাটকের কাহিনী শুরু হয় রকি (Afran Nisho) ও তিথি (Mehazabien) কে দিয়ে।

তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক তৈরি হয়

রকি একজন শিহ্মক যে কিনা তিথির বাসায় টিউশনি করায়, এবং এর মধ্যে তাদের একটা প্রেমের সম্পর্ক তৈরি হয়ে যায়, এরপরে দীর্ষ পাঁচ বছর ধরে তারা প্রেম করার পরে তাদের ভালোবাসার কথা তাদের বাবা মা কে বলে, এবং তাদের সন্মতি তে তারা বিয়ে করার সিদ্ধার্ন্ত নেয়।

সামনে এগিয়ে যেতে আইনস্টাইনের ১২টি উক্তি

এরপরে সব কিছু ঠিক ঠাক ই ছিল, আর তারা বিয়ে করার প্রস্তুতি নিতে শুরু করলো, কিন্তু বিয়ের কিছুদিন আগে হঠাৎ এক কার এক্সিডেন্ট হয় তিথির যার কারনে সে অ্যানিমেশিয়া নামক এক রোগে আক্রান্ত হয় তিথি, এটা এমন একটি রোগ যার কারণে মানুষ তার স্মৃতি ৯-১০ সেকেন্ড এর বেশি মনে রাখতে পারে না।

নাটক :- চিরকাল আজ
পরিচালনায় :- ভিকি জাহেদ
পারসোনাল রেটিং :- ৮/১০

তিথি আস্তে আস্তে তার পুরনো সব স্মৃতি ভুলতে থাকে

এরপরে তিথি আস্তে আস্তে তার পুরনো সব স্মৃতি ভুলতে থাকে, এভাবে এগোতে থাকে নাটকের কাহিনী, বাকিটা জানতে হলে দেখতে পারেন নাটকটি, নাটকটির শেষের টুইস্ট টা দেখে জাস্ট “থ ” হয়ে গেছি এক্কেবারে আনসপেক্টেড ছিল।

এ নাটকে একটা জিনিষ আমার সব থেকে বেশি ভালো লাগছে সেটা হলো মেহজাবীন চৌধুরীর অভিনয়, এ ধরনের একটি রোল এ তার অভিনয় আসলেই একটা চ্যালেঞ্জিং ছিল, আর এই চ্যালেঞ্জ এর মেহজাবীন পাশ করে গেছে, সত্যিই আগের তুলনায় এ নাটকে অসাধারন ছিল তার অভিনয়,সাথে আফরান নিশোর অভিনয়ও অনেক ভালো ছিল,আর সাথে মেহজাবীন এর মায়ের ভূমিকায় যিনি অভিনয় করেছেন তার অভিনয় ও অনেক ভালো ছিল।

ইন্টারনেটের অন্ধকার জগৎ ডার্ক ওয়েব ও ডিপ ওয়েব

সব মিলিয়ে অসাধারন একটা নাটক “চিরকাল আজ”, এত সুন্দর কন্সেপ্ট এর একটা নাটক তৈরি করার জন্য পরিচালক ভিকি জায়েদ কে একটা ধন্যবাদ তো দেওয়াই যায়। সবাইকে সাজেস্ট করবো এ নাটকটি দেখার জন্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published.